• রবিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২২, ১০:১১ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
পাহাড় খেকো সিন্ডিকেটের হাতে উখিয়া উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা পর্যুদস্ত, থানায় মামলা। উখিয়া কুতুপালং বাজার ব্যবসায়ী সমবায় সমিতি লিঃ এর নির্বাচনে-জানে আলম সভাপতি ও মোঃ আলী সাঃ সম্পাদক নির্বাচিত। উখিয়া উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান মরহুম নুরুল ইসলাম চৌধুরী স্মৃতি বৃত্তি পরীক্ষা-২০২২ অনুষ্ঠিত ফলিয়াপাড়া আলিমুদ্দীন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের বিদায় অনুষ্ঠান সম্পন্ন। মানসিক ভারসাম্যহীন লিল মিয়া দীর্ঘ ২০ বছর পর পরিবারের কাছে ফিরে তাক লাগিয়ে দিল। টেকনাফ মডেল থানা পুলিশের বিশেষ অভিযানে ২৭৮ কার্টুন বিদেশী সিগারেট পরিত্যক্ত অবস্থায় উদ্ধার উখিয়ার থাইংখালী মহিলা হিফ্জ খানায় এ বছরে ৫ জন হিফজ সম্পন্নকারীদের সংবর্ধনা সম্পন্ন নাইক্ষ্যংছড়ি তুমব্রু সীমান্তে নিহত ডিজিএফআই কর্মকর্তা রেজওয়ান রুশদীর দাফন সম্পন্ন কক্সবাজারে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে জাতীয় দৈনিক ভোরের চেতনা পত্রিকার ২৪তম প্রতিষ্টাবার্ষিকী। প্রেমের ভিডিও ধারনের জেরে দপ্তরি হাফেজ দিদার খুন বলে সন্দেহ-ব্যাপারটা পুলিশ খতিয়ে দেখছে।

যে কারনে ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার খেলা পণ্ড হলো

AnonymousFox_bwo / ৩০৯ মিনিট
আপডেট সোমবার, ৬ সেপ্টেম্বর, ২০২১

আইকন ইন্টারন্যাশনাল ডেস্কঃ

ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা ম্যাচ মানেই তীব্র উত্তেজনা আর উন্মাদনা ছড়ায় ফুটবলদুনিয়ায়। ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার বহুল প্রতীক্ষিত ম্যাচটি যখন শুরু হচ্ছিল তখন গোটা বিশ্বের ফুটবলপ্রেমীদের চোখ ছিল ব্রাজিলের করিন্থিয়ান্স আরেনা মাঠে। কিন্তু খেলা শুরুর ৫ মিনিটের মাথায় ঘটে যায় লঙ্কাকাণ্ড! বন্ধ হয়ে যায় ম্যাচটি।

খেলাটি যখন পাঁচ মিনিটে গড়ায় ঠিক তখন ব্রাজিলের জাতীয় স্বাস্থ্য তত্ত্বাবধান এজেন্সির কর্মকর্তারা হঠাৎ মাঠে প্রবেশ করেন। এ সময় তাদের সঙ্গে ছিলেন বেশ কিছু আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যও।আর্জেন্টিনার খেলোয়াড়দের সঙ্গে হাতাহাতিও হয় তাদের। একপর্যায়ে মাঠ ছেড়ে ড্রেসিংরুমে চলে যান আর্জেন্টিনার খেলোয়াড়রা। পরে স্থগিত হয়ে যায় ম্যাচটি।

ম্যাচ শুরুর পর এই বিপত্তি ঘটার কারণ আর্জেন্টিনার চার খেলোয়াড়। তারা হলেন- এমিলিয়ানো মার্তিনেজ, ক্রিস্টিয়ান রোমেরো, জোভান্নি লো সেলসো, এমিলিয়ানো বুয়েন্দিয়া। এই চারজন আর্জেন্টিনার একাদশে শুরুতেই ছিলেন। ম্যাচের তিন দিন আগে থেকেই তারা ব্রাজিলে অবস্থান করেন এবং অনুশীলন করেছেন। কিন্তু ম্যাচ শুরু আগ পর্যন্তও তাদের খেলার ব্যাপারে কোনো আপত্তি জানায়নি দেশটির ওই স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা।

ওই চার আর্জেন্টাইন খেলোয়াড় ইংল্যান্ডে খেলেন। তারা ব্রাজিলে আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলতে এসে প্রয়োজনীয় কোয়ারেন্টিনবিধি মানেননি। সে কারণে তাদেরকে ব্রাজিল থেকে বের করে দেওয়ার গুঞ্জনও শোনা যাচ্ছিল। কিন্তু ব্রাজিল আনুষ্ঠানিকভাবে কোনো পদক্ষেপ নেয়নি।

আর্জেন্টিনার ক্রীড়া পত্রিকা টিওয়াইসি জানিয়েছে, খেলা চলাকালে মাঠে আসা ব্যক্তিরা স্থানীয় স্বাস্থ্য কর্মকর্তা। ইংল্যান্ড থেকে আসা আর্জেন্টিনারের ৪ খেলোয়াড়ের ব্যাপারে খোঁজ নিতে প্রবেশ করেন ওই স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা। এ ঘটনার কিছুক্ষণ পর মাঠ ছেড়ে ড্রেসিং রুমে চলে যান আর্জেন্টিনার খেলোয়াড়রা।

আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম বলছে, ব্রাজিল ও আর্জেন্টিনার খেলোয়াড়রা মাঠে প্রবেশ করা স্বাস্থ্য কর্মকর্তাদের ঘিরে ধরলে তারা তখন মেসি ও নেইমারের সঙ্গে কথা বলেন। একপর্যায়ে সমস্যার সমাধান না হওয়ায় রেফারি আর্জেন্টিনার খেলোয়াড়দের ড্রেসিং রুমে পাঠিয়ে দেয়।

রয়টার্স তাদের প্রতিবেদনে জানিয়েছে, কোয়ারেন্টিনের নিয়ম ভাঙার দায়ে আর্জেন্টিনার একাদশের তিন খেলোয়াড়ের খেলা নিয়ে আপত্তি জানান স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা। তাদের অভিযোগের পর করিন্থিয়ান্স আরেনা ছেড়ে ড্রেসিং রুমে চলে যান আর্জেন্টাইন খেলোয়াড়রা।

এ ঘটনায় আনুষ্ঠানিক বিবৃতি দিয়েছেন আর্জেন্টিনার কোচ লিওনেল স্কালোনি। হতাশা প্রকাশ করে তিনি বলেছেন, এ ব্যাপারে আমাকে স্পষ্ট করে কিছু বলাই হয়নি। আমাদের একটাবারের জন্যেও বলা হয়নি যে ওই চারজন খেলোয়াড়কে খেলানো যাবে না। আমরা ম্যাচটা খেলতে চেয়েছিলাম। আমি জানি, ব্রাজিলের খেলোয়াড়েরাও খেলতেই চেয়েছিল।

এমন একটা ম্যাচ আয়োজন না হওয়াটা ফুটবলেরই ক্ষতি উল্লেখ করে আর্জেন্টিনার কোচ আরও বলেন, ম্যাচটা সংশ্লিষ্ট সবার জন্যই উৎসবের মতো ছিল। সবাই বিশ্বের সেরা খেলোয়াড়দের খেলা দেখতে পেত। কিন্তু দুর্ভাগ্যজনকভাবে সেটা হলো না।এভাবে মাঠের মধ্যে ঢুকে খেলা বন্ধ করে দেওয়ার ব্যাপারটা মোটেও ভালো হয়নি। ব্যাপারটা অনেক কষ্টের। আমি বলতে চাই না, এখানে কে দোষী আর কে না। তবে আমার মনে হয় না ম্যাচটি এভাবে পণ্ড করে দেওয়াটা যুক্তিসঙ্গত ছিল।

লিওনেল স্কালোনি দাবি করেছেন, কনমেবল (লাতিন আমেরিকার ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা) তাদের বলেছে- ওই চারজনকে নিয়ে খেলতে কোনো সমস্যা নেই।

এদিকে কনমেবল এক টুইটে জানিয়েছে, ফিফা আয়োজিত বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের এই ম্যাচ রেফারি স্থগিত করে দিয়েছে। ম্যাচ রেফারি ও ম্যাচ কমিশনার ফিফার শৃঙ্খলা কমিটির কাছে এ নিয়ে প্রতিবেদন দেবে। তার ওপর ভিত্তি করে পরবর্তী করণীয় ঠিক হবে।

 


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর....